ব্রেকিং নিউজঃ

Published: 2 months ago

শনিবার ফেডারেশন কাপ শুরু



ক্রীড়া প্রতিবেদক

বর্তমান চ্যাম্পিয়ন ঢাকা আবাহনী লিমিটেড ও নবাগত সাইফ স্পোর্টিং ক্লাবের ম্যাচ দিয়ে ওয়ালটন ফেডারেশন কাপ ফুটবল টুর্নামেন্টের পর্দা ওঠছে শনিবার। বিকেল পাঁচটায় উদ্বোধনী ম্যাচটি বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে শুরু হবে।

সন্ধ্যা সোয়া ৭টায় দ্বিতীয় ম্যাচে ব্রাদার্স ইউনিয়ন ও টিম বিজেএমসি একে অপরের মোকাবেলা করবে। এ ম্যাচগুলোর মধ্যদিয়েই ঘরোয়া ফুটবলের মৌসুম শুরু হতে যাচ্ছে। বাংলাদেশ প্রিমিয়ার ডিভিশন ফুটবল লিগের প্রস্তুতিমূলক প্রতিযোগিতা হিসেবেই ফেডারেশন কাপ দিয়ে মৌসুম শুরু হওয়া। ফলে প্রিমিয়ার লিগের ১২টি দলই অংশ নিচ্ছে। এরমধ্যে ৪টি দলই শিরোপা জয়ের অন্যতম দাবিদার। ফলে মৌসুমের শুরুতে দলগুলোর মধ্যে প্রতিদ্বন্দ্বিতার আভাস দেখা যাচ্ছে। এরমধ্যে বিদেশী খেলোয়াড়ের কোটা কমিয়ে আনায় মধ্যমসারি ও অপেক্ষাকৃত দুর্বল দলগুলোও শিরোপা প্রত্যাশীদের সঙ্গে প্রতিদ্বন্দ্বিতা জমিয়ে উঠতে পারে। এতে উদিয়মান ফুটবলারই পার্থক্য গড়ে দিতে পারেন। ফেডারেশন কাপের অন্যতম শিরোপাপ্রত্যাশীরা হচ্ছে প্রিমিয়ার লিগ ও ফেডারেশন কাপজয়ী ঢাকা আবাহনী লিমিটেড, স্বাধীনতা কাপ চ্যাম্পিয়ন চট্টগ্রাম আবাহনী লিমিটেড, লে. শেখ জামাল ধানমন্ডি ক্লাব লিমিটেড ও শেখ রাসেল ক্রীড়া চক্র লিমিডেট। তাদের সঙ্গে শিরোপা জয়ে তাল মেলাতে পারে ঢাকা মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাব লিমিটেড ও প্রিমিয়ার লিগের নবাগত সাইফ স্পোর্টিং ক্লাব।

গত মৌসুম অবশ্য স্বাধীনতা কাপ ফুটবল টুর্নামেন্ট দিয়ে শুরু হয়ে প্রিমিয়ার লিগ দিয়ে ডিসেম্বরে মৌসুম শেষ হয়েছিল। পাঁচ মাস পর ফের ফুটবলের আরেকটি নতুন মৌসুম শুরু হতে যাচ্ছে শনিবার থেকে। যদিও মৌসুম মাঠে গড়ানো নিয়ে কিছুটা সংশয় ছিল। তবে বৃহস্পতিবার লিগ কমিটি জরুরি বৈঠকে  ক্লাবগুলোর দাবি-দাওয়া সমাধানে খানিকটা অগ্রগতি হওয়ায় সে অনিশ্চয়তা কেটে যায়। ফলে ফেডারেশনের কাপে পাটিসিপেশন মানি এক লাখ টাকার বদলে প্রতিটি ক্লাবকে এখন দুই লাখ করে দেয়া হচ্ছে। শুধু তাই নয়, চ্যাম্পিয়ন প্রাইজমানি ৫ থেকে ৬ লাখ এবং রানার্সআপ মানি ৩ থেকে ৪ লাখ টাকা করা হয়েছে। ক্লাবগুলোর আরো বেশকিছু দাবি-দাওয়া প্রিমিয়ার লিগ মাঠে গড়ানোর আগেই সমাধানের আশ্বাসের প্রেক্ষিতেই দলগুলো ফেডারেশন কাপে অংশ নিচ্ছে।

এদিকে ঘরোয়া ফুটবলকে বিদেশী নির্ভর কমাতে ও উদিয়মান খেলোয়াড়দের বেশি ম্যাচ খেলার সুযোগ করে দিতে লিগ কমিটি বিদেশী কোটা কমিয়ে এনেছে। এখন চারটির পরিবর্তে তিনজন করা হয়েছে। তবে মাঠে খেলতে পারবেন ২ জন। ফলে ফেডারেশন কাপ দিয়েই হয়ত এবারের ঘরোয়া ফুটবলে জমজমাট ভাব দেখা যেতে পারে।

 

বাংলা রিপোর্ট ডটকম/এমএ