ব্রেকিং নিউজঃ

Published: 3 months ago

রবীন্দ্রজয়ন্তীতে নওগাঁর পতিসরে উৎসবের আমেজ



বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের ১৫৬তম জন্মবার্ষিকী আগামী ৮ মে সোমবার। এবছর রবীন্দ্রজয়ন্তীর কেন্দ্রীয় অনুষ্ঠান হবে নওগাঁ’র পতিসরে।

এ উপলক্ষে নওগাঁ জেলা প্রশাসনের সহযোগিতায় সংস্কৃতি মন্ত্রণালয় পতিসরে ব্যাপক প্রস্তুতি ও বিস্তারিত কর্মসূচি গ্রহণ করেছে। কবির নিজস্ব জমিদারী কালিগ্রাম পরগনার কাচাড়ীবাড়ি আত্রাই উপজেলার পতিসরে কবিপুত্র দেবেন্দ্রনাথের নামে নির্মিত ‘দেবেন্দ্র মঞ্চ’কে বেশ জাঁকজমকপূর্ণভাবে সাজানো হয়েছে। নৈসর্গিক সৌন্দর্যমণ্ডিত নিভৃত পল্লী পতিসর কাচাড়িবাড়ি ও তৎসংলগ্ন ভবনসমূহ রং ও ধোঁয়া মোছার কাজ শেষ করা হয়েছে।

রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ এবারের রবীন্দ্রজয়ন্তীর উৎসবে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকার কথা রয়েছে। এ উপলক্ষেও পতিসর সেজেছে নতুন সাজে। নওগাঁ শহর থেকে ৩৬ কিলোমিটার দূরে আত্রাই উপজেলার নিঝুম-নিস্তব্ধ-নিভৃত পল্লী পতিসর। কবিগুরু রবীন্দ্রানাথ ঠাকুরের একান্ত নিজস্ব জমিদারী ছিল কালীগ্রাম পরগণা। এই পরগনার জমিদারী কার্যক্রম পরিচালিত হতো পতিসর কাচাড়ীবাড়ি থেকে। কবি প্রথম পতিসরে আসেন ১৮৯১ সালে। এরপর থেকে তিনি ১৯৩৭ সাল পর্যন্ত নিয়মিত এই কাচারী বাড়িতে এসেছেন। এখানে বসে রচনা করেছেন অজস্র কবিতা, গান, ছোট গল্প, নাটক এবং উপন্যাস।

রাষ্ট্রপতির আগমন উপলক্ষে এলাকাবাসী, রবীন্দ্র অনুরাগী এবং সাহিত্যিকদের মধ্যে ব্যাপক উৎসাহ উদ্দীপনা এবং প্রত্যাশা সৃষ্টি হয়েছে। ইতিমধ্যেই নওগা জেলার আত্রাই ও রানীনগর, বগুড়া জেলার আদমদিঘী ও নন্দীগ্রাম এবং নাটোর জেলার সিংড়া উপজেলায় শুরু হয়েছে উৎসবের আমেজ।

পতিসর রবীন্দ্র সংগ্রহশালার প্রতিষ্ঠাতা এম মতিউর রহমান মামুন, আবাদপুকুর মহাবিদ্যালয়ের অধ্যক্ষ জি এম মাসুদ রানা এবং স্থানীয় সাংস্কৃতিক কর্মী ওহেদুল ইসলাম মিলন বলেন, এই প্রথম রাষ্ট্রপতি রবীন্দ্র জন্মজয়ন্তীর উৎসবে আত্রাই উপজেলার প্রত্যন্ত পল্লী পতিসরে আসছেন।

রবীন্দ্র স্মৃতিবিজড়িত স্থানসমুহের মধ্যে পতিসর এতোদিন ছিল অবহেলিত। কিন্তু এবছর রাষ্ট্রপতির আগমনকে ঘিরে এখানকার মানুষের প্রত্যাশা বেড়ে গেছে অনেক গুণ। তাঁদের প্রাণের দাবি উঠেছে রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের নামে এখানে একটি কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপনের। কৃষকদের ভাগ্যের উন্নয়নে রাষ্ট্রপতি গুরুত্বপূর্ণ এ ঘোষণা দিবেন এমনটাই আশা এখানকার রবীন্দ্র ভক্তদের।

রাষ্ট্রপতির আগমন উপলক্ষে পতিসরসহ আত্রাই ও রানীনগর উপজেলায় ব্যাপক নিরাপত্তা ব্যবস্থা গহণ করা হয়েছে। নওগাঁর পুলিশ সুপার মোঃ মোজাম্মেল হক জানান, আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতির যাতে কোন অবনতি না ঘটে সে দিকে সার্বক্ষণিক নজর রাখছেন আইন শৃংখলা বাহিনী।

জেলা প্রশাসক ড. মোঃ আমিনুর রহমান বলেন, রবীন্দ্র উৎসবে রাষ্ট্রপতির আগমন উপলক্ষে জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে সার্বিক প্রস্তুতি শেষ করা হয়েছে। উৎসবে দু’হাজারেরও বেশি অতিথিদের নিমন্ত্রণ জানানো হয়েছে। কবির স্মৃতিবিজড়িত বিভিন্ন ধরনের সামগ্রী দিয়ে সাজানোর চেষ্টা করা হয়েছে পতিসর কাচারী বাড়ী।

ঐ দিন বেলা দু’টায় পতিসর দেবেন্দ্র মঞ্চে প্রথমে রয়েছে আলোচনা ও স্মৃতিচারণ অনুষ্ঠান। এতে সংস্কৃতি মন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর এমপি সভাপতিত্ব করবেন। বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখবেন বস্ত্র ও পাট মন্ত্রী মুহাঃ ইমাজ উদ্দিন প্রামানিক এমপি এবং স্থানীয় সংসদ সদস্য মোঃ ইসরাফিল আলম। স্বাগত বক্তব্য রাখবেন সংস্কৃতি বিষয়ক সচিব মোঃ ইব্রাহীম হোসেন খান। স্মারক বক্তব্য রাখবেন অধ্যাপক ড. হায়াৎ মামুদ।

পরে বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমী ঢাকা, জেলা শিল্পকলা একাডেমী নওগাঁ, উপজেলা শিল্পকলা একাডেমী আত্রাই ও রানীনগরের শিল্পীরা সা্স্কংৃতিক অনুষ্ঠান পরিবেশন করবেন।

 

বাংলা রিপোর্ট ডটকম/এমএকে