ব্রেকিং নিউজঃ

Published: 2 months ago

এফএসআরইউ-এর মাধ্যমে এলএনজি আমদানি



সরকার তিনটি পয়েন্ট থেকে তিনটি ‘ফ্লোয়েটিং স্টোরেজ অ্যান্ড রি-গ্যাসিফিকেশন ইউনিট (এফএসআরইউ)’ চালু করে স্বল্প পরিসরে দৈনিক ৪৫০ এমএমসিএফ তরলকৃত প্রাকৃতিক গ্যাস (এলএনজি) আমদানির আশা করছে।

 

 

আজ জ্বালানি ও খনিজসম্পদ বিভাগের সচিব নাজিমউদ্দিন চৌধুরী বাসসকে বলেন, ‘আমরা সাংগু, কাফকো (কর্ণফুলি ফার্টিলাইজার কোম্পানি লিমিটেড) ও চট্টগ্রাম ইউরিয়া ফার্টিলাইজার লি. (সিইউএফএল)-এ তিনটি এফএসআরইউ স্থাপন করে ক্ষুদ্র পরিসরে এলএনজি আমদানির উদ্যোগ গ্রহণ করেছি।’

 
তিনি বলেন, আমদানিকৃত এলএনজি সাংগু, কাফকু ও সিইউএফএর-এর মাধ্যমে সরবরাহ করা হবে। সরকার অভ্যন্তরীণ চাহিদা মেটাতে বছরে একবার স্বল্প পরিসরে এলএনজি আমদানি করবে।

 
সচিব বলেন, সরকার সাংগু, কাফকোর জেটি ও সিইউএফএল-এর স্থগিতকৃত তৈরি পাইপলাইন ব্যবহার করবে। প্রত্যেক ইউনিটে দৈনিক ১৫০ এমএমসিএফ গ্যাসের জন্য কি ধরনের এফআরএসইউ স্থাপনের প্রয়োজন তা জানতে এখন একটি জরিপ চলছে। এই উদ্যোগটি এখন পর্যন্ত অ্যাকাডেমিক পর্যায়ে রয়েছে বলেও জানান তিনি।

 
এছাড়াও, সরকারি সূত্র জানায়, দেশের ক্রমবর্ধমান চাহিদা মেটাতে দৈনিক গ্যাস সরবরাহ ৫০০ এমএমসিএফে বৃদ্ধির জন্য সরকার কাতার থেকে এলএনজি আমদানির জন্য কক্সবাজারের মহেশখালী দ্বীপে এফআরএসইউ স্থাপন করবে।

 
সরকার এক্সসেলারেট এনার্জির সঙ্গে ১৮ মাসের মধ্যে একটি এফআরএসইউ স্থাপনের জন্য একটি চুক্তি করেছে। কাতারের রাষ্ট্র পরিচালিত প্রতিষ্ঠান রাসগ্যাস কোম্পানি লিমিটেড (রাসগ্যাস) এতে গ্যাস সরবরাহ করবে। কিন্তু সরকার গ্যাস সমস্যার সমাধানে এলএনজি আমদানিতে অন্যান্য কিছু সূত্রও খোলা রাখবে।

 
তিনি বলেন, সরকার তালিকাভূক্ত ১৫টি আন্তর্জাতিক এলএনজি সরবরাহ কোম্পানির স্পট মার্কেট থেকেও এলএনজি আমদানি করবে।

 

বাংলা রিপোর্ট ডটকম/এএইচ