ব্রেকিং নিউজঃ

Published: 5 months ago

নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্যমূল্যে ঊর্ধ্বগতি



দুই সপ্তাহ ধরে বেড়ে চলেছে ডালের দাম। বাজারভেদে কিছুটা বাড়তি দামে বিক্রি হচ্ছে সবজি ও গরুর মাংসও।

বিক্রেতারা জানান, আমদানি কমে যাওয়ায় ডাল কিছুটা বাড়তি দামে বিক্রি হচ্ছে।

গত সপ্তাহে ডাল প্রতি কেজিতে ১০ টাকা বেশি দামে কিনতে হয়েছে ক্রেতাদের। এ সপ্তাহে আগের বাড়তি দামের সঙ্গে কেজিতে যোগ হয়েছে আরও ৫ থেকে ১০ টাকা।

দেশি মসুরির ডাল ১৪৫-১৫০ টাকা, আমদানি করা ১২০ টাকা এবং ক্যাঙ্গারু ১৬০ টাকা কেজিতে বিক্রি হচ্ছে।

টমেটো পাকা ৪০-৪৫ টাকা কেজি, আধাপাকা ৫০ টাকা, কাঁচা মরিচ ৮০ টাকা, ধনেপাতা ৮০ থেকে ১২০ টাকা কেজি বিক্রি হচ্ছে।

অপরিবর্তিত রয়েছে গাজরের দাম। পটল ও ঢেঁড়শ বিক্রি হচ্ছে ৫০ টাকা কেজি দরে। করলা ৪০ টাকা। পেঁপে ২৫ থেকে ৩০ টাকা। শসা ৩৫ টাকা।

কিছুটা দাম বেড়েছে বেগুন ৫০-৮০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। অপরিবর্তিত দামে বিক্রি হচ্ছে পেঁয়াজ, রসুন ও ডিম।

দেশি পেঁয়াজ ৩০ টাকা ও আমদানি করা পেয়াজ ২২ থেকে ২৪ টাকা কেজিতে বিক্রি হচ্ছে। ফার্মের মুরগির ডিমের হালি ৩০ টাকা, ডজন ৯০ টাকা। দেশি মুরগির ডিমের হালি ৫০ টাকা, ডজন ১৫০ টাকা। হাঁসের ডিমের হালি ৪০ টাকা, ডজন ১২০ টাকা।

এ সপ্তাহে দেশি রসুন ৯০ থেকে ১শ’ টাকা কেজি বিক্রি হচ্ছে। আর আমদানি করা রসুন প্রতি কেজি বিক্রি হচ্ছে ১৯৫ থেকে ২শ’ টাকায়।

এদিকে আলুর দাম কেজিতে বেড়েছে এক থেকে দুই টাকা। প্রতিকেজি আলু বিক্রি হচ্ছে ১৮ থেকে ২০ টাকায়।

খাসির মাংস পূর্বের দামেই ৫৬০ থেকে ৫৮০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

ফার্মের মুরগি ব্রয়লার প্রতি কেজি ১৫০ টাকা, লেয়ার ১৮০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। আকারভেদে দেশি মুরগি বিক্রি হচ্ছে ২৬০ থেকে ২৮০ টাকা কেজিতে। পাকিস্তানি মুরগি পিস ২শ’ টাকা এবং কেজি বিক্রি হচ্ছে ২৫০ টাকা দরে।

গরুর মাংসের দাম বেড়েছে ২০ টাকা। এ সপ্তাহে গরুর মাংস বিক্রি হচ্ছে ৫০০ টাকা কেজি।